আন্তর্জাতিক সম্মাননা পেলো পূজা সেনগুপ্ত’র তুরঙ্গমী

বাংলাদেশের জন্যে আরেকটি আন্তর্জাতিক সম্মান বয়ে আনলো তুরঙ্গমী। জানা গেছে, ইন্টারন্যাশনাল ড্যান্স কাউন্সিল ইউনেস্কোর প্যানোরমায় স্থান পেয়েছে তুরঙ্গমীর প্রযোজনা ‘হো চি মিন’। সম্প্রতি ইন্টারন্যাশনাল ড্যান্স কাউন্সিল ইউনেস্কোর পক্ষ থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। এই অর্জনের মধ্য দিয়ে ইন্টারন্যাশনাল ড্যান্স কাউন্সিল ইউনেস্কোর প্যানোরমায় বাংলাদেশ ট্যাব যুক্ত হয়েছে। আর প্রথম বাংলাদেশী প্রযোজনা হিসেবে ইউনেস্কোর আর্কাইভে জায়গা করে নিয়েছে তুরঙ্গমীর ‘হো চি মিন’। সেখানে তুরঙ্গমীর প্রযোজনাটিকে বিশ্বের প্রথম জীবনীমূলক ড্যান্স থিয়েটার হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে বলে জানা গেছে। জানা গেছে, তুরঙ্গমীর প্রযোজনা ‘হো চি মিন’-এর মূল ভাবনা, পাণ্ডুলিপি, নকশা ও নির্দেশনা দিয়েছেন পূজা সেনগুপ্ত। এতে ভিয়েতনামের জাতির জনক, কিংবদন্তি নেতা হো চি মিনের জীবন, সংগ্রাম ও জীবনদর্শন তুলে ধরা হয়েছে বলে জানান পূজা।
পূজা সেনগুপ্ত আরও জানান, তাদের প্রযোজনায় ভদ্মাদিমির ইলিচ লেনিনের জীবনকাহিনীও উঠে এসেছে। ইউনেস্কো কর্তৃক এ অর্জন প্রাপ্তির বিষয়ে পূজা বলেন, এমন অর্জন ভীষণ সম্মানের। তুরঙ্গমী দলের প্রত্যেক সদস্য এ খবরে ভীষণ আনন্দিত। ২০১৭ সালে আন্তর্জাতিক নৃত্য উৎসবে অংশ নিতে ভিয়েতনামে যাই, তখন হো চি মিনের জাদুঘরে যাওয়া হয়। তার সম্পর্কে জানার আগ্রহ বাড়ে। কিন্তু এত বড় একজন নেতার জীবনী তুলে ধরার প্রয়াস কখনই সহজ ছিল না। তবে আমরা চেষ্টা করেছি একটি আন্তর্জাতিক মানের নৃত্যনাট্য নির্মাণ করার। এমন স্বীকৃতি পাওয়ায় ভবিষ্যতে আরও বড় কাজের ক্ষেত্রে অনুপ্রেরণা পাবো বলে আশা রাখছি।
রোমান রায়