মিরসরাইয়ে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করলেন রুহেল

মানুষের মৌলিক অধিকার খাদ্য সরবরাহ নিশ্চিত করতে সরকার যেমন কাজ করছে, তেমনি আত্মসচেতন হওয়াও মৌলিক দায়িত্ব বলে মন্তব্য করেছেন চট্টগ্রাম উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক এবং স্টার সিনেপ্লেক্সের কর্ণধার মাহবুব রহমান রুহেল। সারাবিশ্ব বাসী এখন মহামারী করোনা ভাইরাসের ঝুঁকিতে রয়েছে।এবং এর প্রাদুর্ভাব বেড়েই চলেছে, এর প্রভাবে মৃত্যু মিছিল দিন দিন বেড়েই চলেছে। এখনও এর কোনো প্রতিকার হয়নি। বাংলাদেশেও করোনা ভাইরাসে সংক্রামিত রোগির সংখ্যা অর্ধশতক ছাড়িয়ে গিয়েছে।মারা গিয়েছে ৬ জন। সারাদেশে এখন লকডাউন চলছে। এমতাবস্থায় দেশের নিম্ন আয়ের অসহায় মানুষরা পড়েছেন বিপাকে। তাই দেশের বিভিন্ন শ্রেণীর সুশীল,রাজনৈতিক,খেলোয়াড় ও শোবিজ অঙ্গনের মানুষরা তাঁরা তাঁদের সামর্থ্য অনুযায়ী এই গরীব-দুঃখীদের সহায়তা করে যাচ্ছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজেলার বারৈয়ারহাট এলাকায় খাদ্য সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন।
মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগ এবং ব্যক্তি উদ্যোগে কয়েক হাজার মানুষের জন্য এসব খাদ্য সামগ্রী উপজেলার ১৬টি ইউনিয়ন ও দুই পৌরসভায় পাঠানো হয়।
আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও মিরসরাইয়ের সাংসদ ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেনের সন্তান রুহেল বলেন, ‘সরকার আপনার জন্য সব করছে, আপনি সরকারকে সচেতনতা উপহার দিন। খাদ্য মৌলিক অধিকার, তেমনি আত্মসচেতনতাও মৌলিক দায়িত্ব। করোনার এই সময়ে খাদ্যের পাশাপাশি বেশি প্রয়োজন আত্মসচেতনতা।’
সরকার ঘোষিত বিধিনিষেধ ও স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে আহ্বান জানান তিনি।
মিরসরাই ইকোনমিক জোন-১ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক রুহেল বলেন, ‘শারীরিক দূরত্ব মেনে ধৈর্যের সাথে এই পরিস্থিতি জয় করা সম্ভব। আমরা যে এটা পারি বিশ্বকে দেখিয়ে দিতে হবে। মনোবল ঠিক রাখতে হবে, ভয়ের কিছু নেই।’
এসময় উপস্থিত ছিলেন মিরসরাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রুহুল আমিন, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী, উপজেলা চেয়ারম্যান জসীম উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর ভুঁইয়া, বারৈয়ারহাট পৌরসভার মেয়র নিজাম উদ্দিন, চট্টগ্রাম উত্তরজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি তানভীর তপু, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি রাসেল ইকবাল ও সম্পাদক ফরহাদ হোসেন,যুবলীগ নেতা মাইনুর ইসলাম রানা প্রমুখ।
রোমান রায়